Quantcast
Ads by Techtunes - tAds

নাসা স্পেস অ্যাপ চ্যালেঞ্জে বাংলাদেশের ‘হাবিপ্রবি’ ৫ম স্থানে! নিজ দেশকে ভোট করে এগিয়ে নিন।

0 টিউমেন্টস 128 দেখা প্রিয়

যেদিন প্রথম মানুষ আকাশে উড়বে বলে ঘোষণা করা হলো, সেদিন তা দেখতে এসেছিল মাত্র ৩ জন। তাও আবার আগ্রহে না। মজা নিতে। কারণ, তাদের ধারণা ছিল মানুষ কখনও আকাশে উড়তে পারে না। বাকীটুকু ইতিহাস। আপনি হরহামেশাই আকাশে উড়তে পারেন। চিন্তা করুন তো, উড়োজাহাজ আবিষ্কারের আগ পর্যন্ত যারা মারা গেছে তারা তো এই বিশ্বাস নিয়েই মারা গেছে যে মানুষ কখনও আকাশে উড়তে পারবে না। কী অদ্ভুত আর বোকাসোকা এক চিন্তা নিয়ে মারা গেছে তারা! এজন্যই বলি স্বপ্ন দেখুন।
প্রায় সবাই জানেন আমি মাঝে মাঝেই কিছু প্রতিবেদন তৈরি করি চলমান কিছু সমস্যা ও তার সম্ভাব্য সমাধান নিয়ে। আজকেও এর ব্যতিক্রম থাকছে না। হ্যাঁ। আজ আমি আপনাদের এমনই একটি সমস্যা তুলে ধরবো। আর সেজন্য আপনাদের সাহায্যও চাইবো।
আপনি কি জানেন? বিশ্বের উন্নয়নশীল দেশগুলোর ২৫% এর বেশি মানুষের নিরাপদ পানির সংস্থান নেই। হ্যাঁ। আর এই পানির দূষণে কত প্রকার রোগ যে তৈরি হচ্ছে তা কি জানেন? আসুন শুধু এক পলক চোখ দেয়া  যাক।

একটা ব্যাপার আমাকে প্রায়ই ভাবায়, স্বাধীনতার ৪৬ পর পার করেও আমরা বুড়িগঙ্গা, হাজারীবাগ-কে পর্যন্ত ময়লা থেকে মুক্ত করতে পারিনি। কারণ, কেউ স্বপ্ন পর্যন্ত দেখিনি। কিন্তু এই স্বপ্নটাই দেখেছে আমাদের দেশের কিছু তরুন-ছেলেমেয়ে।
মনে করুন সৌর শক্তি দ্বারা চালিত বড় একটা জাহাজ তৈরি করলাম যার সাথে থাকবে কতগুলো ছোট ছোট রোবট। আমাদের বড় জাহাজ টা নাসা এর ডাটাবেজ থেকে তথ্য সংগ্রহ করবে যে কোন কোন এলাকায় পানিতে আবর্জনার পরিমাণ বেশি। তারপর সেখানে গিয়ে তার রোবট গুলোকে কামলা খাটিয়ে সব ময়লা আবর্জনা একত্রিত করবে। এরপর এদের মধ্যে প্লাস্টিক জাতীয় যেসব পাওয়া যাবে সেগুলোকে পুড়িয়ে সেখানেই স্তুপ করে রাখবে এই কামলা খাটা রোবট গুলো।
আচ্ছা একটা জাহাজ না হয় অনেক কম ময়লা আবর্জনা পরিস্কার করবে কিন্তু এরকম যদি হাজার টা অথবা লক্ষটা জাহাজ পানিতে ছাড়া হয় পানিতে কি আগের মত ময়লা আবর্জনা থাকবে??
এরকম আইডিয়া নিয়েই কাজ করছে আমাদের হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের "Team Englitas". নাসা স্পেস এপ চ্যালেঞ্জ ২০১৭ এ তাদের বর্তমান অবস্থান ৫ম। হয়ত আপনাদের সবার সাপোর্ট পেলে Team Englitas এগিয়ে যাবে আরো অনেক দূর। বিশ্বের দরবারে তুলে ধরবে হাবিপ্রবির নাম তথা বাংলাদেশের নাম। আমরা কি পারিনা আমাদের কয়েকটা মিনিট ব্যয় করে তাদের সাপোর্ট করতে?? হয়ত আমাদের একটা ভোট ই পরিবর্তন করে দিতে পারে ফলাফল।

টিম এর নাম : Englitas
ভোট দেয়ার জন্য যা করতে হবে :
১. প্রথমে এই "https://­2017.spaceappschallen­ge.org/auth/signup" লিংক টিতে গিয়ে একটা একাউন্ট খুলতে হবে।(ইউজার নেইম এবং পাসওয়ার্ড টা খুব ভাল করে মনে রাখুন। এটার মাধ্যমে আপনি পরবর্তী তে নাসার একাউন্ট এ ঢুকে ভোট দিতে পারবেন)
২.সাইন আপ করা হয়ে গেলে আপনার ইমেইল এর মেইল বক্স এ ঢুকে একটি মেইল পাবেন যেখানে বলা থাকবে "verify your account ". এখানে ক্লিক করে কনফার্ম করবেন একাউন্ট টি।

৩.একাউন্ট তৈরি হয়ে গেলে, এই লিংক "https://­2017.spaceappschallen­ge.org/vote" এ যাবেন। সার্চ বক্স এ "Englitas" লিখলেই দেখতে পাবেন এই টিম টাকে। তখন আপনি তাদের ভোট দেয়ার একটা অপশন পাবেন! ভোট বাটন টি চেপে রাখবেন যতক্ষন না এটি সবুজ হয়।

 


জিমেইলটাতে তো লগিন করাই আছে সবার। একটু দেখুন না। ৩ মিনিটের বেশি আমার লাগে নি। আপনাদের ৩ মিনিট যদি দেশটাকে পরিবর্তনের একটা সুযোগ তৈরি করে তাহলে কি ভালো না? দেখিই না কী হয়। আমরাও এই বিশ্বাস নিয়ে কি মারা যাবো যে বুড়িগঙ্গা কখনও দূষণমুক্ত হবে না! না আপনার ছেলেমেয়েরা হাসবে এরকম বোকাসোকা চিন্তার কারণে।

আসুন না বিশ্বের দরবারে নিজের দেশকে তুলে ধরি। পরিবর্তন আসবেই। আজ না হোক কাল।

ফেইসবুকে আমি: Mamun Mehedee

Ads by Techtunes - tAds
টিউনার সৌশল মিডিয়া
Ads by Techtunes - tAds
টিউমেন্টস টিউমেন্ট গুলো

You must be logged in to post a Tumment.